Candi Prambanan: দেবী চণ্ডী এক শাপিত রাজকন্যা, হায় রাম!

মধ্যরাত্রের সস্তা ভাড়ার ফ্লইট থেকে নেমে, ঘুম নেমে আসা দু'চোখ কচলে, মন্দিরের সামনে দাঁড়িয়ে তার বিশালতায় আমার তখন মাথা ঘুরে যাওয়ার জোগাড়। নাম শুনেছিলাম, কিন্তু প্রামবানান যে কী বিশাল, আমার কোনও ধারণা ছিল না!

Candi Prambanan: দেবী চণ্ডী এক শাপিত রাজকন্যা, হায় রাম!

ইন্দোনেশিয়ার ক্যান্ডি প্রামবানান মন্দিরের নাম শুনেছিলাম। কিন্তু এর বিশালতা সম্পর্কে সত্যি কোনও ধারণা ছিল না! একটা দ্বীপের নাম যজ্ঞকর্তা কেন, কেন চণ্ডী এখানে শাপিত রাজকন্যা, কেন অগস্ত্য মুনিও এখানে দেবতার সঙ্গে একই সারিতে পুজো পেয়েছেন... মনে উঁকি দেওয়া এমন অনেক প্রশ্ন নিয়েই কাটিয়ে দিলাম একটা দিন।... লিখছেন শান্তনু ভট্টাচার্য  

অগস্ত্য যাত্রা কি ইন্দোনেশিয়াতে গিয়ে শেষ হয়েছিল? মন্দিরটি ইন্দোনেশিয়ার কয়েক হাজার দ্বীপের মাঝে, ছোট্ট একটা দ্বীপে যার নাম যজ্ঞকর্তা (Yogyakarta)! ভালোবেসে ডাকনাম Yogjia। তা কে এই যজ্ঞকর্তা? আর অগস্ত্য মুনির মূর্তিই বা কেন?  

মন্দিরটির ইন্দোনেশিয়ান নাম ক্যান্ডি প্রামবানান (Candi prambanan)। চণ্ডী অপভ্রংশ হয়ে ক্যান্ডি হয়েছে। আর প্রথমে বৌদ্ধ, বর্তমানে ইসলামের আধিপত্যে স্থানীয় লোককথার গল্পে আজ সে এক শাপিত রাজকন্যা! হায় কপাল!

মা চণ্ডী, দুর্গার সন্ধিপুজোয় উপাসিত মা চণ্ডী। দেবীমাহাত্ম্যম্ গ্রন্থের সর্বোচ্চ দেবী। মহাকালী, মহালক্ষ্মী ও মহাসরস্বতী সমন্বয়ে চণ্ডীকে উক্ত গ্রন্থে সর্বোচ্চ সত্তা বলে উল্লেখ করা হয়েছে। তিনি দেবী পার্বতীর উগ্র অবতার। রামায়ণের রামের পূজিত মা চণ্ডী। আজও এই মন্দিরে রামায়ণ অভিনীত হয়, প্রতি রাতে, আমার মতো 'ট্যুরিস্ট'দের জন্য। 

সেই মা চণ্ডী উপাসিত হতেন এই মন্দিরে, দুর্গা রূপে, ব্রহ্মা-বিষ্ণু-মহেশ্বরের সঙ্গে। সেইসঙ্গে গণেশ, শিব এবং আরও অনেকের মাঝে অগস্ত্য মুনিও পুজো পেতেন। অগস্ত্য মুনির মূর্তিও আছে। আর আছে বেশ বড় চত্বর জুড়ে পড়ে থাকা ধ্বংসাবিশেষ। পুরো এলাকাটা ঘুরে দেখতে সাইকেল ভাড়া পাওয়া যায়। তাড়াহুড়ো করে দেখলেও আধবেলা।

মধ্যরাত্রের সস্তা ভাড়ার ফ্লইট থেকে নেমে, ঘুম নেমে আসা দু'চোখ কচলে, মন্দিরের সামনে দাঁড়িয়ে তার বিশালতায় আমার তখন মাথা ঘুরে যাওয়ার জোগাড়। নাম শুনেছিলাম, কিন্তু প্রামবানান যে কী বিশাল, আমার কোনও ধারণা ছিল না! সত্যি বলতে কী, মনে-মাথায় শুধুই ছিল বোরোবুদুর। একই দ্বীপে, এবং এখানে আসবার মুখ্য উদ্দেশ্য। 

ও একটা কথা, আমার ড্রাইভারের নাম ছিল 'আদিত্য'। সে নিজেও জানে শব্দটা সংস্কৃত, যাঁর উৎস হিন্দু, মানে সূর্য। ইতিহাস মোছা খুব শক্ত, কিছু না কিছু নিদর্শন রয়েই যায়।

ছবি: শান্তনু ভট্টাচার্য