Mission Everest-Chandreyee Ghosh: মিশন এভারেস্টে চললেন চান্দ্রেয়ী ঘোষ

মিশন এভারেস্টে (Mission Everest) ব্যতিক্রমী এক পর্বতারোহীর চরিত্র পেয়ে নিজেকে উজাড় করে দেন চান্দ্রেয়ী ঘোষ (Chandreyee Ghosh)। সেই অভিজ্ঞতার কথা বলতে গিয়ে এখনও উত্তেজিত চান্দ্রেয়ী।

Mission Everest-Chandreyee Ghosh: মিশন এভারেস্টে চললেন চান্দ্রেয়ী ঘোষ
মিশন এভারেস্টে চান্দ্রেয়ী ঘোষ

সুনীতা হাজরার ২০১৬-র এভারেস্ট অভিযানের কাহিনি নিয়ে মুক্তি পাচ্ছে দেবাদিত্য বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছবি 'মিশন এভারেস্ট'। ছবির মুখ্য চরিত্র চান্দ্রেয়ী ঘোষ (Chandreyee Ghosh)। সুনীতা হাজরা (Sunita Hazra) ও চান্দ্রেয়ীর কথা শুনল আ-মরি বাংলা (#AMareBangla)
 

নিজস্ব প্রতিবেদন: এভারেস্ট অভিযান (Mission Everest) নিয়ে ছবি, তা-ও আবার বাংলায়! এমনই এক দুরূহ ছবি নিয়ে আসছেন পরিচালক দেবাদিত্য বন্দ্যোপাধ্যায়। বারাসতের পর্বতারোহী সুনীতা হাজরাকে (Sunita Hazra Biopic) ভোলা সম্ভব না বাঙালির। এভারেস্টে উঠতে গিয়ে মৃত্যুকে খুব সামনে থেকে দেখেছিলেন তিনি। এহেন সুনীতা কি আদৌ ছুঁয়েছিলেন এভারেস্টের চূড়া? তা নিয়েও জল্পনা তুঙ্গে ওঠে ২০১৬-য়। এভারেস্ট ছুঁয়ে নামার সময়ে মৃত্যুর মুখোমুখি হন সুনীতা। সেই সময় এক ব্রিটিশ ক্লাইম্বারের আগমন একেবারে ঈশ্বরের মতো। তিনিই পুনর্জন্ম দেন সুনীতাকে।

এহেন সুনীতার জীবনের গল্পে অনুপ্রাণিত হয়ে গত দু'বছর ধরে ছবি তৈরি করেছেন পরিচালক দেবাদিত্য বন্দ্যোপাধ্যায়। ছবির নাম 'মিশন এভারেস্ট'। ছবিতে সুনীতার আদলে তৈরি চরিত্রের নাম সুচন্দ্রা হাজরা । এই চরিত্রে অভিনয় করেছেন চান্দ্রেয়ী ঘোষ (Chandreyee Ghosh)। ছবিতে অন্যান্য চরিত্রে দীপশংকর দে, শান্তিলাল মুখোপাধ্যায়, কৃষ্ণ কিশোর মুখোপাধ্যায়, চৈতি ঘোষাল, মেঘা চৌধুরী, রানা মিত্র, গৌতম মুখোপাধ্যায়, বিদিশা চৌধুরীও রয়েছেন। আট-ন'বার এভারেস্ট সামিট করেছেন, এমন শেরপারাও এই ছবিতে কাজ করেছেন।

ব্যতিক্রমী এক পর্বতারোহীর চরিত্র পেয়ে নিজেকে উজাড় করে দেন চান্দ্রেয়ী ঘোষ। সেই অভিজ্ঞতার কথা বলতে গিয়ে এখনও উত্তেজিত চান্দ্রেয়ী। বলছিলেন, 'এই ছবিটা করা আমার কাছে লাইফ চেঞ্জিং অভিজ্ঞতা এবং সারা জীবনের একটা অ্যাচিভমেন্ট। এই ছবির সুচন্দ্রা হাজরার চরিত্রে আমার কথা ভেবেছেন পরিচালক দেবাদিত্য। এ জন্য নিজকে লাকি মনে করি।'

এই শ্যুটিং শুরুর আগে প্রত্যেককে একটা প্রস্তুতিপর্বের মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছে। শিখতে হয়েছে ট্রেকিংয়ের খুঁটিনাটি। চান্দ্রেয়ীর কথায়, 'মাইনাস ২০-৩০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় শ্যুট করা প্রচণ্ড কঠিন ছিল। কী কী পরিস্থিতিতে চ্যালেঞ্জ নিয়ে আমি কাজ করতে পারি, সেটা বুঝেছি। মুহূর্তের মধ্যে দেখলাম সন্ধে নেমে এল। সেইসঙ্গে তাপমাত্রার পরিবর্তন। দিনে প্রচণ্ড চড়া রোদ। মোটা লেয়ারের পোশাকের ভিতর মারাত্মক ঘামছি, শট দিচ্ছি। আর সন্ধে নামলেই মাইনাস ডিগ্রি। শট দিতে গিয়ে ঠান্ডায় তখন থর-হরি-কম্প পরিস্থিতি! এ ভাবেই রাতের দৃশ্য শ্যুট করেছি। সে কী কষ্ট! এই ছবির শ্যুটিং করতে গিয়ে হাড়ে হাড়ে টের পেলাম, পর্বতারোহীরা কতটা কষ্টসহিষ্ণু।'

অভিনেত্রী জানালেন, লাদাখ, স্পিতি ভ্যালি, কাজা-- একেকটা লোকেশনে পৌঁছতেই ১৬-১৮ ঘণ্টা। তার পর আবার শ্যুটিং করা। শ্যুট চলেছিল অনেক দিন ধরে। প্রথম ২০-২২ দিনে মাত্র কয়েক'টা শট দিতে পেরেছিলাম। তার কারণ, প্রথমে ট্রেক করে উঠে লোকেশনে পৌঁছই। অক্সিজেনের অভাব। চার দিকে শুধু বরফ আর বরফ। নীচে দূরে ছড়িয়ে ছিটিয়ে ইউনিটের লোকজন। সবাইকে পিঁপড়ের মতো দেখাচ্ছিল। সেখান থেকেই নির্দেশ আসছিল পরিচালকের। অর্ধেক কথা শুনতে পাচ্ছি, কিছুটা পাচ্ছি না। অক্সিজেন কম বলে হাঁপিয়ে যাচ্ছি সবাই। আবার মাইনাস ডিগ্রিতে অতটা ট্রেক করে নীচে নেমে পরের শট দিচ্ছি। শুধু আমি নই, ইউনিটের লোকজন থেকে আমার সহ-অভিনেতাদের সকলকেই মারাত্মক পরিশ্রম করতে হয়েছে।

পর্বতারোহী সুনীতা হাজরার সঙ্গে চান্দ্রেয়ী ঘোষ

শ্যুটিং শুরুর আগেই সুনীতা হাজরার সঙ্গে দেখা করে অনেক কথাও হয়েছে বলে জানালেন চান্দ্রেয়ী। 'সুনীতাদির ওঁর অভিজ্ঞতা শেয়ার করেছেন । পেয়েছি জরুরি টিপস৷ শ্যুটিংয়ের সময় মনে হচ্ছিল কী ভীষণ মানসিক আর শারীরিক জোর সঙ্গে নিয়ে সুনীতাদিরা ওঠেন। যখন তখন পরিস্থিতি প্রতিকূল হয়ে উঠতে পারে। প্রকৃতির বিরুদ্ধে লড়াই করার সাহস রাখা চাট্টিখানি কথা নয়।'

ALSO READ|  The Yellow Turtle: মহাপঞ্চমী থেকে লক্ষ্মীপুজো... বাঙালির বাহারি আহারে ইয়েলো টার্টলে পেটপুজোর আমন্ত্রণ

যাঁর এভারেস্ট অভিযানের অভিজ্ঞতা নিয়ে এই ছবি, সেই সুনীতা হাজরা চান্দ্রেয়ীর পাশে বসে বসলেন, 'আমি প্রথম যখন শুনলাম এমন একটা ছবি বাংলায় তৈরি হবে, প্রচণ্ড খুশি হয়েছিলাম। ছবি তৈরির আগে পরিচালক দেবাদিত্য এবং চান্দ্রেয়ীর সঙ্গে বহু কথা হয়েছে। পাহাড়ে আমার বিভিন্ন অভিজ্ঞতার কথা চান্দ্রেয়ীর সঙ্গে শেয়ার করি। ছবিটা দেখার পরে সত্যিই আমি অভিভূত।'

সুনীতা হাজরার এভারেস্ট অভিযানের কাহিনি নিয়ে ক্যামিলিয়ার প্রযোজনায় এবং দেবাদিত্য বন্দ্যোপাধ্যায়ের পরিচালনায় ছবি 'মিশন এভারেস্ট' মুক্তি পাচ্ছে পুজোর আবহে, আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর।

ALSO READ| Mahalaya 2022: চ্যানেলে চ্যানেলে মহালয়ার দুর্গাবন্দনা, এই প্রথম দুর্গা রূপে ঋতুপর্ণা